আজই তৃণমূলে (TMC) যোগ দিলেন ব্যারাকপুরের বিজেপি সাংসদ (BJP MP) অর্জুন সিংয়ের (Arjun Singh) তিন ঘনিষ্ঠ আত্মীয় (Relatives)। টিটাগড়ে তৃণমূলের জেলা পার্টি অফিসে পার্থ ভৌমিক ও জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের উপস্থিতিতে শাসকদলে যোগ দিলেন অর্জুন সিংয়ের ভাইপো সৌরভ সিং, ভগ্নিপতি সুনীল সিং ও তাঁর ছেলে আদিত্য সিং। সুনীল সিং নোয়াপাড়ার প্রাক্তন তৃণমূল বিধায়ক। গত বিধানসভা ভোটে তিনি ছিলেন নোয়াপাড়া বিধানসভার বিজেপি প্রার্থী। অর্জুনের ভাইপো সৌরভ সিং ভাটপাড়া পুরসভার প্রাক্তন প্রধান। সুনীল সিংয়ের ছেলে আদিত্য বিজেপি যুব মোর্চার নেতা ছিলেন। এবারের পুরভোটে অর্জুনের তিন ঘনিষ্ঠ আত্মীয়কেই প্রার্থী করে বিজেপি।গতকাল তিনজনই প্রার্থী পদে মনোনয়ন প্রত্যাহার করেন।

গতকাল রাজ্যে চার পুরসভায় ভোটের দিনই পরিবারেই ধাক্কা খেলেন অর্জুন সিং। দল প্রার্থী করার পরও বিজেপি ছাড়লেন সুনীল সিং ও তাঁর ছেলে আদিত্য। একই পথে হাঁটলেন বিজেপি সাংসদের ভাইপো সৌরভ। তুঙ্গে তৃণমূলে ফেরার জল্পনা। আত্মীয় হিসেবে ত্যাগ করেছি। মন্তব্য করেছিলেন অর্জুন সিংহ।

পুরভোটে বিজেপির টিকিট পেয়েও দল ছাড়লেন অর্জুন সিংয়ের ভগ্নিপতি ও প্রাক্তন বিধায়ক সুনীল সিং।বাবার পথে হেঁটে মনোনয়ন প্রত্যাহার করলেন আদিত্য সিংও।বিজেপি ছাড়লেন আরেক প্রার্থী, অর্জুন সিংহের ভাইপো সৌরভ। সেইসঙ্গে জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক ও পার্থ ভৌমিকের সঙ্গে দেখা করে তৃণমূলের যোগদানের জল্পনাও উস্কে দিয়েছিলেন তাঁরা। শনিবার চার পুরসভায় ভোটের মাঝেই, বঙ্গ রাজনীতিতে চাঞ্চল্য ফেলে দেওয়া এই দৃশ্য নজরে পড়ে ব্যারাকপুর মহকুমাশাসকের দফতরে।

২৭ ফেব্রুয়ারি ১০৮ পুরসভার মধ্যে ভোট হবে উত্তর চব্বিশ পরগনার ভাটপাড়া ও গারুলিয়া পুরসভায়। গারুলিয়ার ১৭ নম্বর ওয়ার্ডে, নোয়াপাড়ার প্রাক্তন বিধায়ক সুনীল সিং-কে প্রার্থী করেছিল বিজেপি। তাঁর ছেলে আদিত্যকে ১২ নম্বর ওয়ার্ডে টিকিট দিয়েছিল দল। যিনি ব্যারাকপুর সাংগঠনিক জেলার বিজেপির যুব মোর্চার নেতা ছিলেন। অন্যদিকে অর্জুনের ভাইপো ও ভাটপাড়া পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান সৌরভ সিং-কে ওই পুরসভার ১৭ নম্বর ওয়ার্ডে প্রার্থী করেছিল বিজেপি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

four × 5 =